Berger Paint

ঢাকা, রোববার   ৩১ মে ২০২০,   জ্যৈষ্ঠ ১৭ ১৪২৭

ব্রেকিং:
লিবিয়ায় নিহত ২৬ বাংলাদেশির মরদেহ মিজদাহ শহরে দাফন আজ এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ
সর্বশেষ:
ভার্চুয়াল পদ্ধতিতে বিচার চলবে ১৫ জুন পর্যন্ত আল-আকসা মসজিদের খতিবকে গ্রেফতার করলো ইসরাইল লকডাউন শিথিলে পরিস্থিতি আরো খারাপ হবে, অভিমত বিশেষজ্ঞদের চট্টগ্রামে আরও ২৭৯ জনের করোনা শনাক্ত দুই মাস পর খুলে দেওয়া হলো আল-আকসা মসজিদ

ঢাকাফেরতরা এবার গ্রামে প্রবেশ করায় আতঙ্কিত বরিশালবাসী!

খোকন হাওলাদার, গৌরনদী (বরিশাল)

প্রকাশিত: ২৩ মে ২০২০  

পঠিত: ১০৫
ছবি- প্রতিদিনের চিত্র

ছবি- প্রতিদিনের চিত্র

 

চিরচেনা গ্রাম আজ অচেনা। দীর্ঘদিনের পরিচিত মানুষ, পাড়া-পড়শি, আত্মীয়স্বজন, বন্ধুদের কাছে হঠাৎ অপরিচিত। সব বন্ধন ছিন্ন করে এক আতঙ্কিত মানুষের তকমা শরীরে লেগেছে। মহামারি করোনা ভাইরাসের কারণে ঈদে ঢাকাফেরতদের আতঙ্ক মনে করছেন গ্রামবাসী। তারা বলছেন, করোনা আক্রান্তদের বড়ো একটি অংশ ঢাকা এবং ঢাকার আশপাশের বাসিন্দা। সেখান থেকে কারো গ্রামে আসা মানেই আতঙ্ক। কেননা এখনো পর্যন্ত বেশির ভাগ গ্রাম করোনা মুক্ত। তাছাড়া ঢাকা থেকে কেউ ঈদ করতে গ্রামে আসলেও হোম কোয়ারেন্টাইন মানছেন না। এতে করোনা সংক্রমণের আশঙ্কা থেকেই যাচ্ছে।

বরিশাল জেলায় এখনও বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ছড়ায়নি তবে ঈদ-উল-ফিতারের ছুটিতে গ্রামে প্রবেশ করছে বিভিন্ন স্থানে থাকা বহিরাগত ঢাকাফেরতরা তাই এবার আতঙ্ক বিরাজকরছে গ্রামে।  

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে শুরু থেকেই সম্মুখ যোদ্ধা হিসেবে কাজ করে যাচ্ছে বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ (বিএমপি)। ইতি মধ্যে মহানগরীতে বাহিরের লোকেদের প্রবেশ ঠেকাতে চেক পোস্ট, প্রবাস বা ঢাকা ফেরত ব্যক্তিদের কোয়ারেন্টিন নিশ্চিত এবং লকডাউন কার্যক্রম বাস্তবায়নে জোড়ালো ভূমিকা পালন করছেন তারা।

এর পাশাপাশি বরিশাল মহানগরীতে সর্বপ্রথম নগর পুলিশের উদ্যোগেই সকল সড়ক, মহাসড়ক জীবাণুনাশক স্প্রে এবং মানবিক সহায়তা প্রদান কার্যক্রমের ফলে শুরু থেকেই বেশ আলোচিত বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ।

তবে গ্রামবাসিরা জানিয়েছেন, ঢাকাফেরতদের আতঙ্কিত মনে করার কারণ হিসেবে ঢাকা ও নারায়ণগঞ্জের বিভিন্ন অফিস, মিল-কারখানায় চাকরিতে কর্মরতদের অনেকেই এ সপ্তাহে গ্রামের বাড়িতে এসেছেন। তাদের কেউ কেউ জ্বর, সর্দি-কাশিতে আক্রান্ত। তাদের কারণে বিভিন্ন উপজেলা করোনা সংক্রমণের তালিকাভুক্ত হয়েছে। ঢাকাফেরতরা গ্রামে ফিরেই দেদারসে চলাফেরা করছেন। বিশেষ করে গ্রামের চায়ের দোকানগুলো খোলা থাকায় আসর জমে উঠে রীতিমতো।

করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের কারন হিসেবে দেখা গেছে  যারা আক্রান্ত হয়েছেন তারা প্রায় সবাই ঢাকা, নারায়ণগঞ্জ ও গাজীপুর থেকে সংক্রমিত হয়ে এসেছেন। ফলে এই তিন জেলাফেরতরা বর্তমানে বরিশালবাসীর কাছে আতঙ্ক হয়ে দাঁড়িয়েছেন। এই পরিস্থিতি দেশের বিভিন্ন জেলার। অনেক জেলায় ঢাকাফেরত কারোর সন্ধান পাওয়া গেলে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি বা প্রশাসনকে খবর দেওয়া হচ্ছে। প্রশাসন এসে বাড়ি লকডাউন করে দিচ্ছে।

এই বিভাগের আরো খবর