ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৬ মে ২০২২,   জ্যৈষ্ঠ ১২ ১৪২৯

ব্রেকিং:
চট্টগ্রাম, গাজীপুর, কক্সবাজার, নারায়ানগঞ্জ, পাবনা, টাঙ্গাইল ও ময়মনসিংহ ব্যুরো / জেলা প্রতিনিধি`র জন্য আগ্রহী প্রার্থীদের আবেদন পাঠানোর আহ্বান করা হচ্ছে। শিক্ষাগত যোগ্যতা- স্নাতক, অভিজ্ঞদের ক্ষেত্রে শিক্ষাগত যোগ্যতা শিথিল যোগ্য। দৈনিক প্রতিদিনের চিত্র পত্রিকার `প্রিন্ট এবং অনলাইন পোর্টাল`-এ প্রতিনিধি নিয়োগ পেতে অথবা `যেকোন বিষয়ে` আর্থিক লেনদেন না করার জন্য আগ্রহী প্রার্থীদের এবং প্রতিনিধিদের অনুরোধ করা হল।
সর্বশেষ:
ডাক্তারদের ফাঁকিবাজি রুখতে হাজিরা খাতায় দিনে তিনবার সই করার নির্দেশ! ১০০০ জনবল নিয়োগ দেবে ওয়ালটন ঢাকায় আসছে ফিফা বিশ্বকাপ ট্রফি সরকারকে ৬ দিনের আল্টিমেটাম ইমরান খানের ফাইনালের পথে বেঙ্গালুরু, লখনৌর বিদায় সেনেগালে হাসপাতালে আগুন; ১১ নবজাতকের মৃত্যু বিশ্বব্যাপী মাঙ্কিপক্স আক্রান্ত ২০০ ছাড়িয়েছে ঢাবিতে ফের ছাত্রলীগ-ছাত্রদল সংঘর্ষ

বান্দরবানের দুর্গম এলাকায় গোলাগুলি, ৪ জন নিহত

প্রতিদিনের চিত্র বিডি ডেস্ক

প্রকাশিত: ৬ মার্চ ২০২২  

ছবি- সংগৃহীত।

ছবি- সংগৃহীত।

 

বান্দরবানের রুমা এলাকায় চার জনের গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এ খবর নিশ্চিত করেছেন বান্দরবানের পুলিশ সুপার জেরিন আখতার। গত মাসেও বান্দরবানে সেনাবাহিনীর একটি টহল দলের সঙ্গে জে এসএস সদস্যদের গোলাগুলির ঘটনায় সেনাবাহিনীর এক সদস্যসহ চারজন নিহত হয়েছিল।

 

তিনি বলেন, রোববার সকালে তিনি গোলাগুলিতে তারা চার জন নিহত হওয়ার খবর পেয়েছেন। গোলাগুলির এই ঘটনা ঘটেছে শনিবার রাতের দিকে। এরই মধ্যে পুলিশের একটি দল মৃতদেহ উদ্ধারে ওই এলাকায় চলে গেছে। তবে মৃতদেহগুলো উদ্ধার করা সম্ভব হয়েছে কিনা সেটি এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

 

জেরিন আখতার জানান, দুর্গম এলাকা হওয়ার কারণে সেখানকার যোগাযোগ ব্যবস্থা খুবই দুর্বল। ধারণা করা হচ্ছে, স্থানীয় পাহাড়ী দুই সন্ত্রাসী গ্রুপের গোলাগুলির কারণেই এই ঘটনা ঘটে থাকতে পারে। তবে বিষয়টি এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

 

গত কয়েকমাসে পার্বত্য জেলাগুলোয় একাধিক সহিংসতার ঘটনা ঘটেছে। গত মাসের শুরুতে বান্দরবানে সেনাবাহিনীর একটি টহল দলের সদস্যদের সাথে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি বা জেএসএসের সদস্যদের গোলাগুলির ঘটনায় এক সেনা সদস্যসহ মোট চারজন নিহত হয়েছেন বলে জানায় আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদফতর।

 

এর আগে ২০২০ সালের জুলাই মাসেও দুটি গ্রুপের সংঘর্ষে বান্দরবানের বাঘমারায় ছয়জন নিহত হয়েছিল। পুলিশের একটি সূত্র তখন জানিয়েছিল যে, পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি-জেএসএসের দুইটি পক্ষের মধ্যে ওই গোলাগুলির ঘটনা ঘটে।

 

 

সূত্র : বিবিসি

এই বিভাগের আরো খবর