ঢাকা, রোববার   ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১,   আশ্বিন ১১ ১৪২৮

ব্রেকিং:
আজ থেকে বিমানবন্দরে করোনা টেস্ট রোহিঙ্গাদের ফেরানোর পরিবেশ তৈরি করতে হবে মিয়ানমারকে দৈনিক প্রতিদিনের চিত্র পত্রিকার `প্রিন্ট এবং অনলাইন ভার্সন`-এ প্রতিনিধি নিয়োগ পেতে আর্থিক লেনদেন না করার জন্য আগ্রহী প্রার্থীদের অনুরোধ করা হল। নিয়োগ পেতে কেউ অসদুপায়ে আর্থিক লেন-দেন করে থাকলে তার জন্য কর্তৃপক্ষ (প্রকাশক ও সম্পাদক) দায়ী থাকবেনা।
সর্বশেষ:
জাতিসংঘের সামনে আওয়ামী লীগ ও বিএনপির সমাবেশ নিষিদ্ধ ৮ খেলোয়াড় নিয়ে দল ঘোষণা ব্রাজিলের মমেক ও রামেকে আরও ১১ জনের মৃত্যু বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত ২৩ কোটি ছাড়াল

ভারতে রিপোর্ট পজিটিভ আসার ৩০ দিনের মধ্যে মারা গেলে করোনায় মৃত্যু ধরা হবে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ১২ সেপ্টেম্বর ২০২১  

ছবি- সংগৃহীত।

ছবি- সংগৃহীত।

 

সারা বিশ্বে করোনা ভাইরাসের কারণে ইতিমধ্যেই মারা গেছেন লাখ লাখ মানুষ। কিন্তু করোনার কারণে মৃত্যু কোন পদ্ধতিতে হিসাব করা হবে তা নিয়ে এখনো চলছে বিতর্ক। সেক্ষেত্রে প্রতিবেশী দেশ ভারতও বাকি নেই।

 

বিষয়টি খোলাসা করতে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট সরকারকে নির্দেশ দেয়। গত ৩০ জুন শীর্ষ আদালত কেন্দ্রীয় সরকারকে করোনার মৃত্যুর ব্যাপ্তি আরও বাড়ানোর বিষয়টি বিবেচনা করে দেখার নির্দেশ দিয়েছিল, যাতে প্রাথমিকভাবে করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর কারো মৃত্যু হলে তার মৃত্যুর কারণ হিসেবে করোনার উল্লেখ করা হয়।

 

সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশের পর গত ৩ সেপ্টেম্বর কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এবং ইন্ডিয়ান কাউন্সিল ফর মেডিকেল রিসার্চ (আইসিএমআর) এর তরফে যৌথভাবে একটি নিয়মবিধি তৈরি করা হয়েছে।

 

শুক্রবার সুপ্রিম কোর্টে হলফনামা জমা দিয়ে সেটি সরকার জানিয়েছে বলে হিন্দুস্তান টাইমস এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

 

এতে বলা হয়েছে, রিপোর্ট পজিটিভ আসার ৩০ দিনের মধ্যে কেউ মারা গেলে মৃত্যুর কারণ হিসেবে করোনা উল্লেখ করা হবে। হাসপাতাল বা বাড়ি যেখানেই ওই ব্যক্তির মৃত্যু হোক না কেন, সেই নিয়ম কার্যকর হবে। একইভাবে করোনার চিকিৎসার জন্য কেউ যদি হাসপাতালে ৩০ দিনের বেশি থাকেন এবং তার মৃত্যু হয়, সেক্ষেত্রে 'ডেথ সার্টিফিকেট' এ মৃত্যুর কারণ হিসেবে করোনার উল্লেখ করা হবে।

এই বিভাগের আরো খবর