Berger Paint

ঢাকা, সোমবার   ২৮ নভেম্বর ২০২২,   অগ্রাহায়ণ ১৪ ১৪২৯

ব্রেকিং:
চট্টগ্রাম, গাজীপুর, কক্সবাজার, নারায়ানগঞ্জ, পাবনা, টাঙ্গাইল ও ময়মনসিংহ ব্যুরো / জেলা প্রতিনিধি`র জন্য আগ্রহী প্রার্থীদের আবেদন পাঠানোর আহ্বান করা হচ্ছে। শিক্ষাগত যোগ্যতা- স্নাতক, অভিজ্ঞদের ক্ষেত্রে শিক্ষাগত যোগ্যতা শিথিল যোগ্য। দৈনিক প্রতিদিনের চিত্র পত্রিকার `প্রিন্ট এবং অনলাইন পোর্টাল`-এ প্রতিনিধি নিয়োগ পেতে অথবা `যেকোন বিষয়ে` আর্থিক লেনদেন না করার জন্য আগ্রহী প্রার্থীদের এবং প্রতিনিধিদের অনুরোধ করা হল।
সর্বশেষ:
প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগের ফল প্রকাশ আবারও পেছালো যে কোনো মূল্যে শিক্ষা কার্যক্রম অব্যাহত রাখা হবে: প্রধানমন্ত্রী চট্টগ্রামে শিশু আয়াত হত্যা : আসামি আবীর ফের রিমান্ডে ৫০ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের কেউ পাস করেনি এসএসসিতে পাসের হার ৮৭.৪৪ শতাংশ সাংহাইয়ে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষ, বিক্ষোভ

সিলেটে মঞ্চ প্রস্তুত, স্লোগানে মুখর সমাবেশস্থল

প্রতিদিনের চিত্র বিডি ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৯ নভেম্বর ২০২২  

 

র মাত্র কয়েক ঘণ্টা বাকি। সমাবেশের জন্য ২ হাজার ১০০ বর্গফুটের মঞ্চের কাজ শেষ করে প্রস্তুত রাখা হয়েছে। মঞ্চ ঘিরে শতাধিক মাইক। এ ছাড়া মঞ্চের সামনে অপেক্ষায় রয়েছেন বিপুল নেতাকর্মী। দুপুরের মধ্যে সিলেটে শুরু হবে বিএনপির বিভাগীয় গণসমাবেশ। এরই মধ্যে মহানগর ছেয়ে গেছে ব্যানার-ফেস্টুনে। চার থেকে পাঁচ লক্ষাধিক মানুষের উপস্থিতির প্রত্যাশায় সব প্রস্তুতি শেষ করেছে দলটি।

 

এদিকে, সিলেটে চলছে পরিবহন ধর্মঘট। ট্রেনসহ বিকল্প পথে সমাবেশস্থলে উপস্থিত হচ্ছেন বিএনপি নেতাকর্মীরা। এর মধ্যেই স্লোগানে মুখর হয়ে উঠছে সমাবেশস্থল। মাঠে অস্থায়ী মেডিকেল ক্যাম্পও রয়েছে।

 

পুরো সিলেট বিভাগে পরিবহন ধর্মঘট থাকলেও স্মরণকালের সবচেয়ে বড় গণজমায়েত হবে বলে আশা বিএনপির। সমাবেশকে ঘিরে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী রয়েছে সতর্ক অবস্থানে।

 

সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। সমাবেশে যোগ দিতে গতকাল শুক্রবার রাত ১০টার দিকে তিনি সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছান। এ ছাড়া সমাবেশে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আবদুল মঈন, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, সেলিমা রহমান, ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকুসহ কেন্দ্রীয় নেতাদের উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে।

 

বিএনপি নেতারা বলছেন, সারা দেশের মতো একই কায়দায় সিলেটেও ধর্মঘট ডাকা হলো। এ সরকার মানুষের সরকার নয়। তারা যখনই খবর পায় যে কোথাও কোনো লোক জড়ো হচ্ছে বা সমাবেশ হচ্ছে, তখনই তারা নানাভাবে তা প্রতিহত করে। আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ ও পুলিশ নানাভাবে দলের নেতাকর্মীদের হয়রানি করছে।

 

এর আগে শীত-কুয়াশা উপেক্ষা করে সিলেটে বিএনপির গণসমাবেশ ঘিরে সরকারি আলিয়া মাদ্রাসার মাঠে নির্ঘুম রাত কাটান নেতাকর্মীরা। মাঝরাত পর্যন্ত মিছিল নিয়ে তারা সমাবেশের মাঠের দিকে যেতে থাকেন।

 

ছাত্রদল, যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল, মৎস্যজীবী দলসহ বিভিন্ন অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের হাজার হাজার নেতাকর্মী প্যান্ডেলের ভেতরে রাত কাটান। অঙ্গসংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ জ্যেষ্ঠ নেতারা মাঠে অবস্থান করেন রাত থেকেই। ব্যান্ডের তালে তালে স্লোগানে মুখর হয়ে ওঠে আলিয়া মাদ্রাসার মাঠ।

 

বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতারা গত বৃহস্পতিবার বিকেল থেকে সিলেট আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে বিভিন্ন জেলার নেতাকর্মীর সঙ্গে একাত্মতা ঘোষণা করে রাতযাপনের সিদ্ধান্ত নেন। এর মধ্যে সমাবেশের জন্য মঞ্চের সামনেই তাঁবু খাটিয়ে খাওয়া-দাওয়ার ব্যবস্থাও করা হয়। সমাবেশের মাঠে যাওয়া নেতাকর্মীকে উজ্জীবিত রাখতে বক্তব্য ও মিছিলে অংশ নেন কেন্দ্রীয় নেতারা।

এই বিভাগের আরো খবর